খুলনার অন্যতম

খুলনার সেরা পাঁচ হোটেল

দক্ষিনাঞ্চলিয় বিভাগীয় শহর খুলনাতে আধুনিক মানসম্মপন্ন তিন তারকা বিশিষ্ট বেশ কয়েকটি হোটেল রয়েছে। মাত্র ১০০০ থেকে ৬০০০ টাকার মধ্যে আপনি খুলনা শহরের ভালো মানের হোটেলগুলোতে রুম পেতে পারেন। অভিজ্ঞতার ভিত্তিতে খুলনার সেরা পাঁচ হোটেলের বর্ণনা নিচে দেওয়া হলো। প্রয়োজনে যোগাযোগ করে ভ্রমনের আগে থেকেই আপনি আপনার পছন্দের হোটেলে বুকিং দিয়ে রাখতে পারেন।

হোটেল রয়েল ইন্টারন্যাশনাল

হোটেল রয়েল ইন্টারন্যাশনাল খুলনার অন্যতম জনপ্রিয় হোটেল। সেই ১৯৮৬ সাল থেকে অপ্রতিরোধ্যভাবে হোটেলটি তার সুনাম অক্ষুন্ন রেখেছে। নগরীর প্রাণকেন্দ্রে হোটেলটি অবস্থিত। আধুনিক সুবিধাসম্বলিত এই হোটেলটিতে আবাসিক সেবাসহ রয়েছে মনোরম রেস্টুরেন্ট, কনফারেন্স রুম, মিটিং রুম, বানকুয়েট হল।

হোটেল ক্যাসল সালাম

১৯৯৬ সালে নান্দনিক স্থাপত্য নকশা, সুসজ্জিত ও আধুনিক সেবার প্রত্যয় নিয়ে হোটেল ক্যাসল সালাম যাত্রা শুরু করে। যাত্রার পর থেকেই হোটেল ক্যাসল সালাম সুনামের সাথে সেবা দিয়ে যাচ্ছে। হোটেল রয়েল ইন্টারন্যাশনালের ঠিক অপর পাশেই হোটেল ক্যাসল সালাম অবস্থিত। এই হোটেলে আবাসন ‍সুবিধাসহ আরও রয়েছে বিজনেস সেন্টার, কনফারেন্স রুম, সুইমিং পুল, বার, ফিটনেস সেন্টার, পুল, রুফটপ গার্ডেন, বারবার শপ ও বিউটি পার্লার। হোটেল ক্যাসল সালামের দ্বিতীয় তলায় অবস্থিত বিস্ট্র-সি রেস্টুরেন্ট খুলনা নগরীর জনপ্রিয় বিস্ট্র স্টাইল রেস্টুরেন্ট।

হোটেল টাইগার গার্ডেন

অতিসম্প্রতি হোটেল টাইগার গার্ডেনকে নতুন রুপে সাজানো হয়েছে। সেবার মান বৃদ্ধির জন্য হোটেলটিতে নতুন করে অন্তসজ্জা, আধুনিক সুযোগ সুবিধা অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। খুলনা নগরীর মধ্যখানে অবস্থিত এই হোটেলে রয়েছে আধুনিক আবাসন সুবিধা সহ রেস্টুরেন্ট, কনফারেন্স রুম, হল রুম, সুইমিং পুল, বারবার শপ। হোটেলটি তার অতিথিদের জন্য টিকেটিং, রেন্ট এ কার সেবা দিয়ে থাকে।

হোটেল সিটিইন

আন্তর্জাতিক মানসম্পন্ন সকল আধুনিক সুযোগ সুবিধা নিয়ে হোটেল সিটিইন খুলনায় যাত্রা শুরু করে। খুলনার একমাত্র বাসস্ট্যান্ড সোনাডাঙ্গা বাসস্ট্যান্ড এবং খুলনার মধ্যমনি শিববাড়ী মোড়ের মাঝখানে হোটেল সিটিইনের অবস্থান। যোগাযোগ ব্যবস্থা, নজরকাড়া স্থাপত্য নকশা ও মানসম্পন্ন সেবার বিনিময়ে অল্পদিনেই হোটেল সেবায় হোটেল সিটিইন খুলনায় দারুন জনপ্রিয়তা অর্জন করে। হোটেল সিটিইনে বিজনেস সেন্টার, কনফারেন্স রুম, বানকুয়েট হল, ট্যুর ডেস্ক, এয়ারপোর্ট ট্রান্সপোর্ট, রেন্ট-এ-কার, সুইমিং পুল, ফিটনেস সেন্টার, ফুট ম্যাসাজ সেন্টার, জেন্টস পার্লার, মানি এক্সচেঞ্জার, ডিজিটাল আগুন নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থা রয়েছে। হোটের সিটিইন রেস্টুরেন্ট খুলনা নগরীতে বেশ জনপ্রিয়। এছাড়াও এখানে রুফটপ রেস্টুরেন্ট রয়েছে।

হোটেল ওয়েস্টার্নইন ইন্টারন্যাশনাল

যারা খুলনা শহরে একটু নিরিবিলি হোটেলে থাকতে চান তাদের জন্য হোটেল ওয়েস্টার্নইন ইন্টারন্যাশনাল অন্যতম। বাংলাদেশ ব্যাংকের পাশে, শহীদ হাদীস পার্কের সন্নিকটে হোটেল ওয়েস্টার্নইন ইন্টারন্যাশনাল অবস্থিত। আবাসন সুবিধাসহ রেস্টুরেন্ট, ফিটনেস সেন্টার, পুল টেবিল, মিটিং রুম, এয়ারপোর্ট ট্রান্সপোর্ট সার্ভিস সুবিধা এই হোটেলে রয়েছে। মানসম্মত বাজেট ফ্রেন্ডলি হোটের যারা খুজছেন তাদের জন্য হোটেল ওয়েস্টার্নইন ইন্টারন্যাশনাল দারুন চয়েজ হতে পারে।

Exit mobile version